বলিউডে কাজ নেই, হিলিং প্রোগ্রামের মাধ্যমে খ্রিস্টান ধর্ম প্রচার করছেন জনি লিভার

0
66

বলিউডের বিখ্যাত কমেডি অভিনেতা জনি লিভার এখন ব্যস্ত খ্রিস্টান ধর্ম প্রচারে। ‛হিলিং প্রোগ্রাম’ কিংবা খ্রিস্টান মিশনারিদের আয়োজিত অনুষ্ঠানে ইদানিংকালে ব্যাপকভাবে দেখা যাচ্ছে জনি লিভারকে। হাজার হাজার দরিদ্র জনতাকে বোঝাচ্ছেন যে যীশুর নাম নিলে কঠিন কঠিন রোগ সেরে যায়। খ্রিস্টান মিশনারিদের মাঝে এতটাই জনপ্রিয় যে জনি লিভার এখন পরিচিত ‛ব্রাদার জনি লিভার’ নামে।

ইদানিং জনি লিভারের বেশ কিছু ভিডিও সামনে এসেছে। সেই সব ভিডিওতে জনি লিভার দরিদ্র ও মূর্খ জনতাকে বোঝাচ্ছেন যে যীশুর নাম নিলে রোগ সেরে যায়। শুধু তাই নয়, নিজের পুত্রের কঠিন রোগ যীশুর নাম নিয়ে সেরে গিয়েছে। একজন জনপ্রিয় অভিনেতা রোগীদের হাসপাতালে চিকিৎসা করানোর উপদেশ দেওয়ার বদলে যীশুর নাম নেওয়ার উপদেশ দিচ্ছেন কেন, তা বড়ই আশ্চর্যের।

অবশ্য কেন তিনি হিলিং প্রোগ্রামের মাধ্যমে খ্রিস্টান ধর্ম প্রচার করছেন, তা অবশ্য স্পষ্ট করেছেন এই বলিউড অভিনেতা। তিনি বলেন যে তাঁর পুত্রের গলায় টিউমার হয়েছিল। বহু হাসপাতাল ঘুরে ব্যর্থ হয়েছিলেন তিনি। শেষে সন্তানকে সুস্থ করতে নিউ ইয়র্কে যান তিনি। সেখানে এক যাজকের সঙ্গে দেখা হয় তাঁর। তিনি তাকে যীশুর নাম নিতে বলেন। ছেলেকে হাসপাতালে ভর্তি করেছিলেন তিনি। কিন্তু যীশুর নাম নিতে নিতে ১০ দিন পরে চিকিৎসক জানায় যে তাঁর পুত্রের ক্যানসার ভালো হয়ে গিয়েছে। সেই থেকেই তিনি যীশুর নাম প্রচার করার সিদ্ধান্ত নেন।

এখানেই থেমে না থেকে অদ্ভুত সব দাবি করে চলেছেন জনি লিভার। তাঁর দাবি, এইভাবে যীশুর নাম প্রচার করতে করতে তাঁর মধ্যে রোগ সরানোর অলৌকিক ক্ষমতা চলে এসেছে। এমনকি আর এক বলিউড অভিনেতা ঋত্বিক রোশনের কঠিন রোগ সারিয়ে তুলেছেন তিনি, এমন দাবিও করেছেন জনি লিভার।

We are not big media organisation. Your support is what keeps us moving. Don't hesitate to contribute because, work, for society needs society's support. Jai Hind.