কোন আইনে মসজিদে লাইড স্পিকার চালানো হচ্ছে? প্রশ্ন তুললো কর্ণাটক হাইকোর্ট

0
81

কোন আইনে বলা রয়েছে মসজিদগুলিতে তারস্বরে লাউডস্পিকার চালানো যাবে? প্রশ্ন তুলল আদালত। কর্ণাটক হাইকোর্ট রাজ্য সরকার এবং পুলিশকে নির্দেশ দিয়েছে, আইনের কোন ধারায় ১৬ টি মসজিদে লাউডস্পিকার ব্যবহারের কথা বলা হয়েছে তা জানানোর জন্য। একইসঙ্গে, এই ধরনের শব্দ দূষণ রোধ করার জন্য কী কী ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে, তাও জানতে চেয়েছে কর্ণাটক হাইকোর্ট।

গত ১৬ই নভেম্বর এক জনস্বার্থ মামলার শুনানিতে কর্ণাটক হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতি ঋতু রাজ অগস্থি এবং বিচারপতি শচীন শঙ্কর মাগাদুমের ডিভিশন বেঞ্চ এমন মন্তব্য করে। সেই সঙ্গে রাজ্য পুলিশ এবং সরকারের কাছে জানতে চায় যে কোন আইনে মসজিদে লাউড স্পিকার ব্যবহারের অনুমতি দেওয়া হয়েছে।

শুনানিতে সরকার পক্ষের আইনজীবী হাইকোর্টকে জানায় যে কর্ণাটকের ওয়াকফ বোর্ড ওই মসজিদগুলিকে লাউড স্পিকার লাগানোর অনুমতি দিয়েছে। তা শোনার পরই বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চের মন্তব্য যে মসজিদে লাউড স্পিকার ব্যবহারের অনুমতি কেবলমাত্র পুলিশ কিংবা রাজ্য প্রশাসন দিতে পারে। ওয়াকফ বোর্ডের সেই অনুমতি দেওয়ার কোনও অধিকার নেই। সেই সঙ্গে হাইকোর্ট রাজ্য পুলিশ ও রাজ্য সরকারকে নির্দেশ দেয় যে শব্দ দূষণ নিয়ন্ত্রণে কি কি পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে, তা জানাতে হবে কোর্টকে।

উল্লেখ্য, শব্দ দূষণ নিয়ন্ত্রণ নিয়ে কর্ণাটক হাইকোর্টে পিটিশন দায়ের করেছিলেন পি রাকেশ নামে এক ব্যক্তি। সেই মামলায় পিটিশনার-এর পক্ষে মামলা লড়ছিলেন বর্ষীয়ান আইনজীবী শ্রীধর প্রভু। সেই মামলার শুনানিতে মসজিদের লাউড স্পিকারের পাশাপাশি নাইটক্লাব ও বড় গাড়ি থেকে যে দূষণ হয়, তা নিয়ন্ত্রণে বিশেষ ব্যবস্থা নিতে সরকারকে নির্দেশ দিয়েছে কর্ণাটক হাইকোর্ট। সেই সঙ্গে কি কি ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে, তাও জানানোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছে হাইকোর্টের তরফে।

We are not big media organisation. Your support is what keeps us moving. Don't hesitate to contribute because, work, for society needs society's support. Jai Hind.