পাঞ্জাব: গুরুদাসপুরে সেনা জওয়ানকে পিটিয়ে হত্যা করলো খালিস্তানপন্থীরা

0
105

বাড়িতে ছুটি কাটাতে আসা ভারতীয় সেনাবাহিনীর এক জওয়ানকে পিটিয়ে হত্যা করলো খালিস্তানপন্থীরা। ওই জওয়ান অরুণাচল প্রদেশে ছিলেন এবং ছুটি কাটাতে বাড়ি এসেছিলেন। ঘটনা পাঞ্জাবের গুরুদাসপুরের। মৃত ওই জওয়ানের নাম দীপক সিং।

জানা গিয়েছে, গুরুদাসপুরে বাইপাস সংলগ্ন একটি গুরুদ্বারা রয়েছে। সেখানেই কোনও একটা বিষয়ে ওই সেনা জওয়ানের সঙ্গে গুরুদ্বারায় আসা লোকজনের বচসা বাঁধে। তখনই গুরুদ্বারাতে থাকা লোকজন তাকে ভিতরে টেনে নিয়ে যায় এবং বেধড়ক মারধর করে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ছুটে আসে পুলিশ এবং তাকে উদ্ধার করে গুরুতর আহত অবস্থায় হাসপাতালে নিয়ে যায়। কিছুক্ষন পরেই হাসপাতালে মৃত্যু হয় ওই সেনা জওয়ানের।

ঘটনায় মৃতের পিতা থানায় অভিযোগ দায়ের করেন। তার ভিত্তিতে পুলিশ দলজিৎ সিং নামে এক ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করেছে। এর পাশাপাশি ঘটনায় জড়িত অন্যান্যদের গ্রেপ্তার করার চেষ্টা চালাচ্ছে পুলিশ।

কিন্তু ঘটনার পর বিষয়টিকে অন্যভাবে দেখানোর চেষ্টার কোনও ত্রুটি রাখছেন না খালিস্তানপন্থীরা। তাঁরা বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ওই সেনা জওয়ানকে অপরাধী সাব্যস্ত করার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। তাদের অভিযোগ ওই সেনা জওয়ান নাকি গুরু গ্রন্থ সাহিবের অবমাননা করেছেন। তাই তাকে মারধর করে পুলিশের হাতে তুলে দেওয়া হচ্ছে। তাদের এও অভিযোগ যে পুলিশের হেফাজতে ওই সেনা জওয়ানের মৃত্যু হয়েছে।

ইতিমধ্যেই খালিস্তানপন্থী দীপ সিধু, যিনি প্রজাতন্ত্র দিবসের দাঙ্গায় অন্যতম অভিযুক্ত, তিনি ওই জওয়ানকে পিটিয়ে হত্যার সমর্থনে ফেসবুকে লেখালিখি চালিয়ে যাচ্ছেন। তিনি উল্লেখ করেছেন যে গ্রন্থ সাহিবের অবমাননা করলে এমন ফল ভুগতে হবে। এমনকি হত্যার অভিযোগে গ্রেপ্তার হওয়া ব্যক্তির পাশে রয়েছেন বলেও বার্তা দিয়েছেন তিনি।

We are not big media organisation. Your support is what keeps us moving. Don't hesitate to contribute because, work, for society needs society's support. Jai Hind.