নারায়ণগঞ্জের মন্দিরের দেবোত্তর সম্পত্তি ফিরিয়ে দেওয়ার দাবিতে নিউ ইয়র্কে বিক্ষোভ হিন্দুদের

0
925

প্রকাশ গুপ্ত, নিউ ইয়র্ক: নারায়ণগঞ্জে দেবোত্তর সম্পত্তি ফিরিয়ে দেওয়ার দাবিতে, বাংলাদেশে ক্রমবর্ধমান জোরপূর্বক ধর্মান্তকরণ ও মূর্তিভাঙ্গার প্রতিবাদে শনিবার ১৩ মার্চ, মাইনোরিটি কোয়ালিশন, ইউএসএ- র উদ্যোগে নিউইয়র্ক জ্যাকসন হাইটসের ডাইভার্সিটি প্লাজায় এক সমাবেশ ও মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। সমাবেশে বাংলাদেশে প্রতিনিয়ত সংখ্যালঘু নির্যাতন , নিপীড়ন , ধর্ষণ, জোরপূর্বক ধর্মান্তর , জোরপূর্বক জমি দখল , দেশ ত্যাগে বাধ্য করা, মন্দির/ উপাসনালয়ে হামলা, মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি, জাতিগত বৈষম্য ও ক্ষমতার অপব্যবহার প্রতিহত করার জন্য সুশীল সমাজের প্রতি আহ্বান জানানো হয়।

এ মানব বন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশে অংশ গ্রহণ করেন হিন্দু, বৌদ্ধ, ক্রিস্টিন ঐক্য পরিষদ, হিন্দু কোয়ালিশন, নিউ ইয়র্ক বুদ্ধিস্ট কমিউনিটির নেতৃবৃন্দ। এতে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন কমিউনিটি নেতা শীতাংশু গুহ, ঐক্য পরিষদের দুই প্রেসিডেন্ট দা: টমাস দুলু রায় ও রণবীর বড়ুয়া; হিন্দু কোয়ালিশনের দীনেশ মজুমদার, গোবিন্দ বানিয়া, প্রকাশ গুপ্ত, নিতাই বাগচি, অংশু বৈদ্য প্রমুখ। বৌদ্ধদের পক্ষে বক্তব্য রাখেন মং এপ্রু, নিরুময় এবং অন্যান্যরা। এতে নেতৃত্ব দেন আয়োজকের পক্ষে সন্জিত ঘোষ,এবং অনুষ্টান পরিচালনা করেন শ্রী দীপক দাশ।

সমাবেশে শিতাংশু গুহ বলেন, এই সমাবেশ কারো বিরুদ্ধে নয়, কিন্তু আমরা আমাদের দেবোত্তর সম্পত্তি ফেরত চাই, আমরা প্রধানমন্ত্রীকে এব্যাপারে হস্তক্ষেপ করার আহবান জানাই। তিনি বলেন, মেয়র আইভীর নানা, মা, মামা ও চাচার নাম দেবোত্তর সম্পত্তিতে আছে, মেয়র হিসাবে এ সম্পত্তি মন্দিরকে ফিরিয়ে দেয়ার দায়িত্ব তিনি এড়াতে পারেন না। শিতাংশু গুহ বলেন, দেবোত্তর সম্পত্তি ক্রয়-বিক্রয় অবৈধ, কাজেই মন্দিরের সম্পত্তি মন্দিরকে ফিরিয়ে দিতে হবে। গোবিন্দ বানিয়া খোকন সাহা’র বিরুদ্ধে মামলা প্রত্যাহারের দাবি জানান। দীনেশ মজুমদার ঐক্যবদ্ধ প্রতিরোধের আহ্বান জানান। প্রকাশ গুপ্ত বলেন, আমরা আর কত প্রতিবাদ করবো? নিতাই বাগচী সরকারকে পদক্ষেপ নেয়ার আহ্বান জানান। মং এপ্রু ও নিরাময় রাঙ্গুনিয়ায় বৌদ্ধ ভিক্ষুকে পুনর্বাসিত করার আহ্বান জানান। টমাস দুলু রায় বলেন, আমরা বারবার প্রধানমন্ত্রীর কাছে আহ্বান জানাচ্ছি, কোন কাজ হচ্ছেনা। রণবীর বড়ুয়া বৌদ্ধভিক্ষু বিরুদ্ধে তথ্যমন্ত্রীর অপতৎপরতার নিন্দা জানান।

সমাবেশে বিভিন্ন বক্তা বলেন, সদ্য নেত্রকোণার দুর্গাপুর পৌরশহরের বাগিচা পাড়া শ্মশান কালী মন্দিরের মূর্তির মাথা ভাঙচুর, কুড়িগ্রামের চিলমারীতে একটি কালীমন্দিরের প্রতিমা ভাঙচুর করেছে দুর্বৃত্তরা, শ্রীপুরে রাতের আদরে সরস্বতী প্রতিমা ভাঙচুর ও দেশের বিভিন্ন প্রত্যন্ত অঞ্চলের ঘটনা তুলে ধরেন। বক্তারা সম্প্রতি ২০২০ সালে মাহারিতে তিন হাজারের উপর ঘটিয়ে যাওয়ার নির্যাতনের তীব্র নিন্দা করে সরকারকে আহ্বান করেন দোষীদের যেন বিচারের আওতায় আনা হয়।

চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়ায় কুখ্যাতভুমিদস্যু এরশাদ মাহমুদ কর্তৃকজ্ঞানশরণ বিহারের জমি ও বিহারদখলের উদ্দ্যেশে সর্বজন শ্রদ্ধেয়শরণংকর ভিক্ষুকে এলাকা ছাড়া, এদিকে গত প্রায় ৫ মাস ধরে বিহারেরবিদ্যুৎ লাইন বিচ্ছিন্ন করে দেয়ায়বিহারের ভিক্ষু শ্রামণরা মানবেতরজীবন যাপন করছে ।একজন মন্ত্রীরপক্ষ না নিয়ে সমগ্র বৌদ্ধ জাতিরকথা চিন্তা করে বিষয়টির সুরাহারজন্য প্রধানমন্ত্রী র হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন বক্তারা। এতে বলা হয়, চাঁপাইনবাবগঞ্জের গোমস্তাপুর উপজেলার পার্বতীপুর ইউনিয়নের লোলাপুর গ্রামের আদিবাসী পচা কিসপট্টার জমি জবরদখল ও হামলা, বান্দরবান, চিম্বুক পাহাড়ে মুরং আদিবাসী গ্রাম উচ্ছেদ হয়েছে। এছাড়া সম্প্রতি বাংলাদেশে কুয়াকাটা, বান্দরবান, কক্সবাজারের উখিয়া,খাগড়াছড়ি সহ বিভিন্ন জায়গায় বৌদ্ধ বিহারে হামলা ও লুটপাটের ঘটনার জন্য উদ্বেগ প্রকাশ করে দোষিদের গ্রেফতার পূর্বক শাস্তির দাবী জানানো হয়। বক্তারা আরো বলেন, রাঙ্গুনিয়ায় স্থানীয় প্রশাসনের মদদেশরণংকর ভিক্ষুর নামে মিথ্যাফেসবুক আইডি বানিয়ে ধর্মীয়উস্কানি মুলক নানা অপপ্রচার চালাচ্ছে , অবিলম্বে তাদের গ্রেফতারের দাবী জানান।

We are not big media organisation. Your support is what keeps us moving. Don't hesitate to contribute because, work, for society needs society's support. Jai Hind.