রাম মন্দিরের নিধি সংগ্রহ অভিযানে যাওয়া RSS, VHP কার্যকর্তাদের ব্যাপক মারধর মুসলিম দুষ্কৃতীদের

0
5808

সারা দেশেই শ্রী রাম মন্দির নির্মাণের লক্ষ্যে নিধি সংগ্রহ অভিযান শুরু হয়েছে। সেই অভিযানে দেশের তামাম হিন্দু জনতার তরফে অভূতপূর্ব সাড়া মিলেছে। অনেক জাতীয়তাবাদী, সম্প্রীতির অনুভূতিসম্পন্ন মুসলিম ব্যক্তিও শ্রী রাম মন্দির নির্মাণ কল্পে অর্থ দান করেছেন। কিন্তু এসবের মাঝেও গুজরাটের কচ্ছ জেলায় নিধি সংগ্রহ অভিযানে হামলার অভিযোগ উঠেছিল মুসলিম দুষ্কৃতীদের বিরুদ্ধে। এবার একই অভিযোগ এলো এ রাজ্যেরই দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলার কাকদ্বীপ থেকে।

স্থানীয় সূত্রের খবর, গত ১৭ই জানুয়ারি, কাকদ্বীপ কোস্টাল থানার অন্তর্গত ঈশ্বরীপুর গ্রামের মাঝিপাড়ায় সামিল হয়েছিলেন বেশ কয়েকজন RSS ও VHP কার্যকর্তা। RSS এর গঙ্গাসাগর জেলার সহ কার্যবাহ দুর্গাপদ চক্রবর্তী, RSS-এর কাকদ্বীপ খণ্ডের কার্যবাহ দয়াল হালদার, VHP এর কাকদ্বীপ খণ্ডের সম্পাদক বিক্রমাদিত্য মিস্ত্রি এবং আরও বেশ কয়েকজন কার্যকর্তা।

বিকেল ৪টা নাগাদ গ্রামেরই একটি বাড়িতে বৈঠক শুরু হয়। বৈঠক কিছুক্ষন চলার পর বিকেল সাড়ে চারটা নাগাদ সূর্যনগর গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান গৌরাঙ্গ পুরকাইত এবং কয়েকজন দুষ্কৃতী ওখানে উপস্থিত হন। তাঁরা উপস্থিত কর্মীদের হুমকি দেন যে, তাদের না জানিয়ে ওই গ্রামে কেন নিধি সংগ্রহ অভিযান শুরু হয়েছে। এমনকি নিধি সংগ্রহ অভিযান বন্ধ রাখারও হুমকি দেওয়া হয়। সেসময় উপস্থিত কার্যকর্তারা প্রতিবাদ করলে তাদের ওপর নেমে আসে আক্রমণ।

স্থানীয় দাগী মুসলিম দুষ্কৃতী ইব্রাহিম শেখ, তোমের ও জালাল ও তাঁর দলবল ঝাঁপিয়ে পড়ে। ব্যাপক মারধর করা হয় তাদের। অনেকের গুরুতর আঘাত লাগে। পাশপাশি, RSS-VHP কার্যকর্তাদের স্কুটার ও মোটরসাইকেল ভাঙচুর করে পাশের খালে ফেলে দেয় ওই দুষ্কৃতীরা। এমনকি, পুলিশে জানালে ফল ভালো হবে না, এমনও হুমকি দিয়ে যায় তাঁরা। এই ঘটনায় আহতরা এতটাই আতঙ্কিত যে তাঁরা ঘটনার কথা উপর নেতৃত্বকে জানালেও, পুলিশের কাছে অভিযোগ দায়ের করতেও সাহস জোগাড় করে উঠতে পারছেন না।

Image: প্রতীকী

We are not big media organisation. Your support is what keeps us moving. Don't hesitate to contribute because, work, for society needs society's support. Jai Hind.